[গিরিবাজ কবুতর] গিরিবাজের কিছু কবুতরের জাত নিয়ে আলোচনা।

আসসালামু আলাইকুম।

গিরিবাজের কিছু কবুতরের জাত নিয়ে আলোচনা।
গিরিবাজ কবুতর 



আজ গিরিবাজের কিছু কবুতরের জাত নিয়ে আলোচনা করবো। যেগুলা দেখতে অনেকটা সেম সেম কিন্তু আলাদা। জাত গুলোর নাম হচ্ছে জাকগলা/ কালপেট্টি & নাপ্তা/ বাবরা । জাকগলা আর কালপেট্টি অনেকটা সেম। জাকগলা কবুতরের সুধু গলা থেকে বুক প্রজন্ত কালো থাকে & কালপেট্টি কবুতরের গলা থেকে বুক পেট হয়ে লেজ প্রজন্ত কালো থাকে। পিঠে কালো স্পট না থাকলে লেজ সব কালো থাকলে সেগুলো পিওর জাকগলা/কালপেট্টি। পিঠে কালো স্পট থাকলে লেজ সাদা বা কালো সাদা মিলানো থাকলেও সেগুলা জাকগলা/কালপেট্টি তবে পিওর না। অনেকে পিঠে কালো স্পট থাকলে সেটাকে নাপ্তা/বাবরা বলে, কিন্তু না। নাপ্তা/বাবরা আলাদা কবুতর।  নাপ্তা কবুতরের গলায় চট থাকবেনা চট থাকলেও সেগুলা অনেক ফাটা থাকবে এলোমেলো থাকবে লেজ সাদা,  কালো অথবা  সাদাকালো মিক্স । বাবরা কবুতরের সরিলে কালো অংস বেসি সাদা কম। 
নিচে আমি উদাহরন সরুপ আমার কিছু নাপ্তা/বাবরা & জাকগলা/কালপেট্টি কবুতরের ছবি দিয়ে বর্ণনা করে দিলাম।  
১ – এটা একজোড়া পিওর জাকগলা। এখানে জাকগলা কবুতরের চট টা দেখানো হয়েছে। চট বলতে গলা থেকে বুক প্রজন্ত কালো যে অংশ সেটাকে বুজায়। এখানে চট বুক প্রজন্ত। 
২ – এখানে জাকগলা জোরাটার পিঠ দেখানো হয়েছে। পিঠে কোন কালো স্পট থাকবেনা। লেজ গুলো কালো।  
৩ – এটাই একটা জাকগলা।  কারন দেখা যাচ্ছে এটার চট ভালো বুক প্রজন্ত। তবে পিওর না। কারন পিঠে কালো স্পট আছে। 
৪ – এখানে জাকগলা কবুতর কে মার্ক করে দেখানো হলো।  
৫ – এটা একজোড়া পিওর কালপেট্টি। এখানে একজোড়া কালপেট্টী কবুতরের চট দেখানো হলো। এখানে দেখা যাচ্ছে কালপেট্টি কবুতরের চট গলা থেকে সুরু হয়ে বুক পেট হলে লেজ প্রজন্ত।  
৬ – এখানে কালপেট্টি কবুতরের পিঠে দেখানো হলো। সম্পুর্ন সাদা।  
৭ – এখানেও একটা কালপেট্টি কবুতর। কিন্তু এটা পিওর কালপেট্টি না। যেহেতু দেখা যাচ্ছে কবুতরটির চট গলা থেকে সুরু হয়ে লেজ প্রজন্ত কালো কিন্তু পিঠে কালো স্পট আছে। 
৮ – এখানে কালপেট্টি কবুতর কে মার্ক করে দেখানো হলো। 
৯ – এটা একটা বাবরা কবুতর।  দেখা যাচ্ছে এটার পিঠে অনেক কালো। পাখ কিছু সাদা।  কালোর পরিমান বেসি। 
১০- এটা একটা নাপ্তা কবুতর।  দেখা যাচ্ছে এটার সরিলে সাদা কালো অনেক স্পট আছে। সব এলোমেলো। 
১১- এটাও একটা নাপ্তা কবুতর। 
বিঃদ্রঃ যদি জাকগলা/ কালপেট্টি কবুতর এর রং কালো না হলে লাল / খয়রী হয় তাহলে সেটাকে লালগলা, খয়রাগলা / লালপেট্টি বলে। বাকি সব বিবরন সেম। 
এগুলো সব আমার নিজের অভিজ্ঞতা থেকে বলা। ভুল হলে ক্ষমার চোখে দেখবেন & কোথায় ভুল টা হয়েছে সংশোধন করারা জন্য হেল্প করবেন । ভালো না লাগলে এরিয়ে যাবেন। 
কবুতরের সমন্ধে আরো ভালো ভালো আপডেট পেতে  ব্লকটি ফলো করে একটিভ থাকুন। ধন্যবাদ
পোস্টটি প্রথম প্রকাশিত হয়েছেঃ SA Pigeons Loft 
আমাদের আরো কিছু পোস্টঃ

Comment Here

Your email won't be public

You can use these HTML tags and markups: <a href="" title=""> <abbr title=""> <acronym title=""> <b> <blockquote cite=""> <cite> <code> <del datetime=""> <em> <i> <q cite=""> <s> <strike> <strong>

*